শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:১১ অপরাহ্ন

কেউ কি এই পরিবারের পাশে দাঁড়াবেন?

কবির হোসেন, রাজবাড়ী

রাজবাড়ী শহরের সজ্জনকান্দা এলাকার পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা সুব্রত (বোবা) পেশায় একজন রিক্সা চালক। প্রফুল্ল আনন্দে রিক্সা চালিয়ে যাত্রীদের মন জয় করে রিক্সা চালাতো। বাক প্রতিবন্দী হওয়ায় তার সাথে কথা বলে অনেকেই মজা করতো। সে ছিলো সদা হাস্যজ্জল ও পরিশ্রমী। সংসারে এখন তার স্ত্রী অষ্টমী , আকাশ নামে ২ বছরের ছেলে ও মেঘলা নামে ৫ বছর বয়সী একটি মেয়ে।

২০১৯ সালের ১৩ই এপ্রিল ১লা বৈশাখের আগের দিন রাজবাড়ী শহরের সারের গোডাউন নামক এলাকায় ড্রাম ট্রাকের চাপায় সে মারাত্নক ভাবে আহত হয়ে মারা যায়। পুলিশ ঘাতক ড্রাম ট্রাকটি আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

রিক্সা চালক বোবা ছিলো সকলের পরিচিত মুখ। সকলেই তাকে রিক্সা চালক বোবা বলেই চিনতো। সকলের প্রিয় ছিল।

প্রতিবেশি শুক্লা দাস জানান, অনেকেই কিছু কিছু করে তার পরিবারকে সাহায্য সহযোগীতা করে থাকে। এখন করোনা পরিস্থিতিতেও কিছু লোকজন সাহায্য করে যায়। কিন্তু তা সীমিত।

নিহত বোবার স্ত্রী অস্টামী জানায়, করোনা পরিস্থিতির কারনে বাইরে যেতে না পারছি না। ঘরে যা আছে তা দিয়ে দু-চার দিন চলবে। সেগুলো ফুরিয়ে গেলে কিভাবে চলবে সে জানি না।

অনিশ্চয়তায় কাটছে দুটি সন্তান নিয়ে তার দিনকাল। শিশু দুটির ভবিষ্যৎ কি? বাবা ছাড়া অনিশ্চয়তার দিকে এগিয়ে চলছে তাদের পৃথিবী।

নিহত বোবার প্রতিবেশি দীলিপ চক্রবর্তী জানান, আমি তখন ঢাকায়। খবর পেয়ে আমার ছেলেকে বলেছি নিহত বোবার সৎ কাজ করার জন্য। বোবা সব সময় হাস্যজ্জ্বল থাকতো। তার মৃত্যুর প্রায় ১ বছর পূর্ণ হলো, খুব কষ্টে আছে তার পরিবার। এখন দেশের মানুষ যদি সুব্রত’র ছেলে মেয়ের পাশে দাঁড়াক।

 

বিপদগ্রস্ত এই পরিবারের পাশে দাড়াতে যোগাযোগ করতে পারেন এই নাম্বারে। প্রদীপ বিশ্বাস ০১৯৩৭-৭১৭১৪১ (বিকাশ পারসোনাল)।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ