সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:৩১ পূর্বাহ্ন

জগন্নাথপুরে যাত্রীবাহী বাস খাদে পড়ে নারী-শিশু সহ আহত ৪০

মো.আলী হোসেন খান, সুনামগঞ্জ

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে একটি যাত্রীবাহী মিনিবাস খাদে পড়ে নারী-শিশু সহ কমপক্ষে ৪০ জন যাত্রী আহত হয়েছেন। ঘটনাটি ঘটেছে জগন্নাথপুর-সুনামগঞ্জ সড়কের কলকলিয়া নামক স্থানে।

আহতরা হলেন শাহজালাল কলেজের প্রভাষক হাসানুজ্জামান (৪৫), দিরাই থানার কালিনগর গ্রামের নাহিদ মিয়া (৭ মাস), একই গ্রামের রিমা বেগম (২৫), আবদুল মুহিত (৪০), নবীগঞ্জের সাদুল্লাপুর গ্রামের আয়শা বেগম (৩০), দক্ষিণ সুনামগঞ্জের দরগাপাশা গ্রামের নাইওর মিয়া (৬০), জগন্নাথপুর উপজেলার নারিকেলতলা গ্রামের ফারহা বেগম (৩), সাদিপুর গ্রামের আবদুল হাসিম (৭০), একই গ্রামের শাহানারা বেগম (৩০), ফতেহপুর গ্রামের সাজিদা বেগম (২৫), তেরাউতিয়া গ্রামের মতিউর রহমান (২৮), কলকলিয়া গ্রামের রুবেল মিয়া (২৭), জগন্নাথপুর গ্রামের মিনিকা রাণী দাস (২৫), একই গ্রামের সঞ্জিব দাস (২৮), রৌয়াইল গ্রামের তপু ঘোষ (২৭), বাউরকাপন গ্রামের লিপ্টু দাস (২৮) ও দিরাই থানার সাকিতপুর গ্রামের হেলন সর্দার (৫০)।

এর মধ্যে গুরতর আহত হেলন সর্দারকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। অন্য আহতদের জগন্নাথপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি সহ প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। এছাড়া সুনামগঞ্জ, ছাতক, দিরাই সহ আরো বিভিন্ন হাসপাতালে আহতদের নিয়ে যাওয়ায় বাকিদের পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি।

স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ১১ মার্চ বুধবার দুপুরে জগন্নাথপুর থেকে সুনামগঞ্জের উদ্দেশ্যে একটি যাত্রীবাহী মিনিবাস কলকলিয়া নামক স্থানে গিয়ে নিয়ন্ত্রন হারিয়ে সড়কের পাশে খাদে পড়ে গেলে এ দুর্ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে জগন্নাথপুর থানা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের দমকল বাহিনী সহ স্থানীয় জনতা আহতদের উদ্ধার করে বিভিন্ন হাসপাতালে প্রেরণ করেন। এদিকে-আহত ও আহতদের আত্মীয়-স্বজনের আহাজারিতে হৃদয় বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয় হাসপাতাল চত্বরে। এ সময় আহতদের দেখতে শতশত জনতার সমাগম হয়। যা সামাল দিতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে হিমশিম খেতে হয়েছে।

এছাড়া আরেকটি পৃথক দুর্ঘটনায় উপজেলার দাসনোয়াগাঁও গ্রামের মন্তেশ^র মিয়া (৬০) ও তার ছেলে সিপন মিয়া (২৬) এবং পৌর পয়েন্টে পাওনা টাকা চাওয়া নিয়ে এনাম মিয়া (৪০) সহ আরো ৩ জন আহত হয়েছেন। তবে এনাম মিয়ার উপর হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে রূপালি ব্যাংক এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। এ সময় থানা পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ