শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল ২০২১, ১২:১৮ পূর্বাহ্ন

মাধবদী থানা আ’লীগের আহ্বায়ক সকলকে পাশে চায়

মাসুম পারভেজ জয়, নরসিংদী প্রতিনিধি

মাধবদী থানার নবনির্বাচিত আহ্বায়ক নির্বাচিত হয়েছেন সিরাজুল ইসলাম। তিনি আজ নিজ অফিসে বলেন দীর্ঘ রাজনীতির জীবনে, শেষ সময়ে এসে এ প্রাপ্তিকে আমি পুরষ্কার মনে করি।

লড়াই সংগ্রাম ত্যাগ বির্সজন আমার রাজনৈতিক জীবনে ছিল সবই সে সাথে ছিল প্রাপ্তিও। আমি ১৯৮২ সাল থেকে ১৯৯২ সাল পর্যন্ত চেয়ারম্যান ছিলাম যেমন ঠিক তেমনি ২০০১ থেকে ওয়ান ইলেভেন পর্যন্ত বিরোধী দলের নির্যাতনের হয়েছি স্বীকার, আর রাজনৈতিক জীবনে পাইকারচর ইউনিয়নের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ছিলাম ২০ বছর। ১৯৬৬ থেকে আজ ২০২১ সাল। দীর্ঘ ৫৫ বছরের জীবনে শেষ সময়ে এসে আমাকে যে পুরষ্কার করেছে তারজন্য আমি চির কৃতজ্ঞ জননেত্রী শেখ হাসিনার নিকট।

এসময় সিরাজুল ইসলামের রাজনৈতিক জীবন সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি ১৯৬৬ সালে নরসিংদী সরকারি কলেজের সাংস্কৃতিক সম্পাদক নির্বাচনের মাধ্যমে রাজনৈতিক জীবন শুরু করি। আমার যুবলীগ করা হয়নি কারন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতির দায়িত্ব পড়ে আমার কাধে। ১৯৭৩ সালে নারায়নগঞ্জ মহকুমা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য নির্বাচিত হই। ১৯৮২ সাল থেকে ১৯৯২ সাল পর্যন্ত টানা দুইবার জনগনের ভোটে নির্বাচিত হই চেয়ারমেন।

১৯৮৪ সাল থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত নরসিংদী জেলা আওয়ামিলীগের কার্যকরী সদস্য হই এবং ১৯৯৮ সালে সম্মলনের মাধ্যমে ২০১৫ সাল পর্যন্ত পাইকারচর ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলাম। আর তারই পুরুষ্কার স্বরুপ জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার লক্ষে, কাদের ভাইয়ের নির্দেশনায় নরসিংদী জেলা আওয়ামিলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক আমাকে মাধবদী থানার আহ্বায়ক নির্বাচিত করেন।

সর্বশেষ তিনি বলেন মুসলেমউদ্দীন ভূইয়ার হাত ধরে রাজনীতিতে এসেছে বলে জানান এবং এসময়ে মাধবদীতে আওয়ামীলীগকে শক্তিশালী করার জন্য মাধবদী সকলে নেতাকর্মীকে পাশে চায় বলে জানান।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ

Spoken English কোর্স