শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল ২০২১, ১২:৩২ পূর্বাহ্ন

শরনখোলায় উপজেলা প্রকৌশল দপ্তরে জনবল সংকট, উন্নয়ন প্রকল্পের মান নিয়ে প্রশ্ন

মাসুম বিল্লাহ শরনখোলা, বাগেরহাট।

বাগেরহাটের শরনখোলায় জনবল সংকটের কারনে সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের গুনগত মান বজায় রাখা অনেকটা চ্যালেঞ্জ হয়ে দাড়িয়েছে উপজেলা প্রকৌশল বিভাগে কর্মরতদের কাছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, গ্রামীন জনপথ সহ উপজেলার অবকাঠামো উন্নয়নের জন্য প্রকল্প বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে নিয়ম অনুযায়ী উপজেলা প্রকৌশল বিভাগে ১৩টি গুরুত্বপূর্ন পদ থাকা সত্বেও শরনখোলা উপজেলা প্রকৌশল বিভাগে কর্মরত আছে মাত্র ৫ জন কর্মকর্তা। বাকি ৮টি পদ দীর্ঘদিন ধরে শুন্য থাকায় অতিরিক্ত কাজের চাপে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন সংশ্লিষ্টরা। পাশাপাশি জনবল সংকট থাকায় প্রকৌশল দপ্তরের নানামুখী সেবা হতে বঞ্চিত হচ্ছে উপজেলার বিভিন্ন এলাকার মানুষ।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপ-সহকারী প্রকৌশলী মো. মাসুদুর রহমান মিনা বলেন, নিয়ম অনুযায়ী একই পদে ৪জন কর্মকর্তা থাকার কথা কিন্তু বাকি তিনটি পদ দীর্ঘদিন ধরে শুন্য। নতুন কর্মকর্তা এখানে পোষ্টিং না দেওয়ার কারনে বাধ্য হয়ে সকলের দ্বায়িত্ব আমাকে সামাল দিতে হচ্ছে। উপজেলা জুড়ে বর্তমানে প্রায় শতাধিক উন্নয়ন প্রকল্প চলমান রয়েছে তাই প্রকল্প গুলো আমার তদারকি করতে হচ্ছে। তাই জনবল সংকটের কারনে সকল প্রকল্পের গুনগত মান পুরোপুরি নিশ্চিত করা যাচ্ছে না। তাছাড়া অফিস টাইমের বাইরেও প্রতিনিয়ত গভীর রাত পর্যন্ত কাজ করতে হচ্ছে তার পরেও কাজের পাহাড় জমে থাকে। অফিসে মোট ৫জন লোক থাকলেও ইঞ্জিনিয়ার স্যার থাকেন বিভিন্ন অফিসিয়াল কাজে ব্যস্ত।

খোন্তাকাটা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. জাকির হোসেন খাঁন মহিউদ্দিন বলেন, দীর্ঘদিন ধরে প্রকৌশল দপ্তরের বহু পদের কর্মকর্তা কর্মচারী নাই। তাই আমরা তেমন কোন সেবা পাইনা। তাদের লোকবলের অভাবে গ্রামীন জনপদ সহ নানা প্রকল্পের উন্নয়ন মুলক কাজকর্মের তেমন তদারকি হচ্ছেনা। যার ফলে অসাধু ঠিকাদাররা এ সুযোগ কাজে লাগিয়ে যেনতেন ভাবে কাজ শেষ করে বিলের নামে সরকারের লাখ লাখ টাকা নিয়ে যাচ্ছে। ওই সকল কাজের গুনগতমান সহ স্থায়ীত্ব নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠেছে। সরকারী অর্থ যেন কোনভাবে নয় ছয় না হয় সে জন্য তিনি প্রকৌশল অধিদপ্তরের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করে শীঘ্রই শরনখোলা প্রকৌশল বিভাগের জনবল সংকট পুরনের জোর দাবী জানান।

জানতে চাইলে উপজেলা প্রকৌশলী মো. খালিদ হোসেন জানান, জনবল সংকটের বিষয়টি উর্ধতন কর্তৃপক্ষকে ইতিমধ্যে অবহিত করা হয়েছে। আশা করি খুব দ্রুত এ সমস্যার সমাধান হবে।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ

Spoken English কোর্স