বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯:২৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
তাহিরপুরে অজ্ঞাত বৃদ্ধার ঠিকানা খুঁজছে এলাকাবাসী নিবন্ধন না থাকায় সাভারে বিভিন্ন হোটেল ও রেস্টুরেন্টকে ১ লক্ষ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা আশুলিয়ায় স্কুল পড়ুয়া কিশোরকে পিটিয়ে হত্যা, সাভারে ২ জনের লাশ উদ্ধার পাটগ্রামে ভারতীয় শাড়ী ও কসমেটিক্স সহ আটক ২ নৌকার মাঝি মোহাম্মদ আলী, ধানের শীষ হাতে সাইফুল আলম বরগুনায় গণপূর্ত বিভাগের জলাশয় অবৈধভাবে দখল করে মাছ চাষ বগুড়ায় ভাতিজার লাঠির আঘাতে চাচার মৃত্যু ঘোড়াঘাটে বালু বোঝাই ট্রাকে ফেন্সিডিলসহ গ্রেফতার ২ সাভারে টায়ার পুড়িয়ে পরিবেশ দূষণ, ৫টি কারখানা গুড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত মন্ত্রণালয়ের কোন কর্মকর্তা কর্মচারী দুর্নীতি করলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা: অতিরিক্ত সচিব

শৈলকুপায় জেলা পুলিশ সুপারের শান্তি সমাবেশে কঠোর হুশিয়ারী

রিয়াজ মোল্ল্যা, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় ধুলিয়াপাড়া গ্রামে জোড়া খুনের পরের দিন জেলা পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান (পিপিএম) এর উদ্যোগে বিশেষ শান্তি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (১২ মে) বিকালে ধুলিয়াপাড়া শচীচরণ প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে এ শান্তি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপস্থিত ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার (শৈলকুপা সার্কেল) আরিফুল ইসলাম, ওসি ডিবি আনোয়ার হোসেন, শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বজলুর রহমান, ওসি তদন্ত মহসিন হোসেন, কচুয়া তদন্ত কেন্দ্র ওসি পিয়ার আলী, ৫নং কাঁচেরকোল ইউপি চেয়ারম্যান এ্যাড. সালাউদ্দিন জোয়ার্দার মামুন ও স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

এসময় পুলিশ সুপার তার বক্তব্যে বলেন, ঝিনাইদহ জেলায় ২০ মাস চাকুরিকালীন সময় বড় ধরনের কোন অপরাধ সংঘটিত হয়নি। কিন্তু গত দুই সপ্তাহে এ উপজেলায় ৪টি মার্ডার সংঘটিত হয়েছে। মার্ডার পরবর্তী এ এলাকায় লুটের রেওয়াজ আছে। যেকোন মুল্যে এ লুটপাট পুলিশ ঠেকাবে। যদি কেউ কোন বেআইনি কর্মকান্ড করে তাহলে কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না বলে কঠোর হুশিয়ারি উচ্চারণ করেন।

তিনি আরো বলেন, অপরাধকারী যেকোন দল বা যেকোন মতের হোক না কেন। তার মাজায় দড়ি বেধে গরুর মতো থানায় নেয়া হবে। পবিত্র রমজান মাসে করোনা মহামারীতে সবাই যখন আতংকিত তখন কতিপয় সন্ত্রাসি এলাকায় মানুষ হত্যা করে রক্তের হোলী খেলবে আর পুলিশ ঘরে বসে আঙ্গুল চুষবে সেটা যেন কেউ না ভাবে।

হত্যার সাথে যে বা যাহারা জড়িত আছে তাদেরকে দ্রুত গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় আনা হবে। যারা এ এলাকায় আইনশৃংখলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটাবে তাদেরকে এমন অবস্থা করা হবে যেন সারাজীবন পুলিশের কথা মনে থাকে। আর অন্যায় করার কথা যেন স্বপ্নেও কল্পনা করতে না পারে। আইনের হাত অনেক লম্বা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ